ভোলায় ১০০ মণ ইলিশ জব্দ, নিলামের সমপরিমাণ জরিমানা

ভোলা প্রতিনিধি : ভোলায় ১০০ মন ইলিশ জব্দ এবং আইন অমান্য করার অপরাধে সমপরিমান জরিমানা করা হয়েছে। ভোলা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মিজানুর রহমান বলেন, ‘জব্দ করা মাছগুলো মেরিন আইনে নিলামে তুলে ২ লাখ ১৫ হাজার টাকায় বিক্রি করা হয়। সমপরিমাণ টাকা জরিমানা করে ফি‌শিং বোট দুটি ছেড়ে দেয়া হয়েছে।’ নি‌ষেধাজ্ঞা অমান‌্য ক‌রে বঙ্গোপসাগরে মাছ ধরে ফেরার সময় মাছ ভ‌র্তি দু‌টি ফি‌শিং বোট জব্দ ক‌রে‌ছে মৎস‌্য বিভাগ।

ভোলা সদর ও দৌলতখান উপ‌জেলার মৎস‌্য বিভাগ অভিযান চালিয়ে সদর উপ‌জেলার ধ‌নিয়া ইউ‌নিয়‌নের তুলাতু‌লি মেঘনা নদী থে‌কে শ‌নিবার দুপু‌রে এফ বি আসমা ও এফ বি সিপ্লো-৫ নামে দুটি ফি‌শিং বোট জব্দ করে।

এ সময় ই‌লিশসহ আ‌নুমা‌নিক ১০০ মণ সামু‌দ্রিক মাছ জব্দ করা হয়। দৌলতখান উপ‌জেলার মৎস‌্য কর্মকর্তা মাহাফুজ হাসনাইন জানান, নি‌ষেধাজ্ঞা অমান‌্য ক‌রে বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জ থেকে একটি ও চট্টগ্রাম থেকে আরেকটি বোট বঙ্গোপসাগরে মাছ ধরে ফিরছিল। এ সময় তারা পা‌লানোর চেষ্টা ক‌রলে যৌথ অ‌ভিযান চা‌লি‌য়ে সদ‌রের ধ‌নিয়া তুলাতু‌লি মেঘনা নদী থে‌কে বোট দুই‌টি জব্দ করা হয়।

সদর উপ‌জেলার মৎস‌্য কর্মকর্তা জামাল হো‌সেন জানান, মেরিন আইন অনুযায়ী এসব মাছ নিলামে তুলে ফি‌শিং বোট মালিকদের নিলামের সমপরিমাণ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মিজানুর রহমান বলেন, ‘জব্দ করা মাছগুলো মেরিন আইনে নিলামে তুলে ২ লাখ ১৫ হাজার টাকায় বিক্রি করা হয়। সমপরিমাণ টাকা জরিমানা করে ফি‌শিং বোট দুটি ছেড়ে দেয়া হয়েছে।’ ইকোফিশ-বাংলাদেশ প্রকল্পের দলনেতা ও মৎস্য বিজ্ঞানী আবদুল ওহাব জানান, হারিয়ে যাওয়া কিছু মাছের প্রজাতির বংশবৃদ্ধির পাশাপাশি সামুদ্রিক ৪৭৫ প্রজাতির মাছের অবাধ প্রজননের জন্য ২০ মে থেকে ২৩ জুলাই পর্যন্ত সাগরে মাছ ধরায় ৬৫ দিনের অবরোধ দেয়া হয়েছে।

নিষেধাজ্ঞার কারণে নিবন্ধিত প্রতিটি জেলেকে সরকারি খাদ্য সহায়তা হিসেবে ৮৬ কেজি করে চাল দেয়া হবে।

সাব্বির আলম বাবু /ইবি টাইমস

EuroBanglaTimes

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »