সাবেক এসপি বাবুল আক্তারের বিরুদ্ধে মিতু হত্যায় নতুন মামলা

চট্টগ্রাম: পাঁচ বছর আগে চট্টগ্রামে মাহমুদা খানম (মিতু) হত্যার অভিযোগে চট্টগ্রামের সাবেক পুলিশ কর্মকর্তা বাবুল আক্তারের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা হচ্ছে। বুধবার চট্টগ্রাম নগরীর পাঁচলাইশ থানায় মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। সেই মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে তোলা হবে তাকে।

এই মামলায় বাবুল আক্তারকেই প্রধান আসামি করা হয়েছে। আগের মামলার আসামিদেরকে নতুন মামলায় হত্যাকাণ্ডের সহযোগী হিসেবে উল্লেখ করা হয়।

এদিকে, বাবুল আক্তার বাদী হয়ে মিতু হত্যায় যে মামলাটি দায়ের করেছিলেন তার চূড়ান্ত রিপোর্ট আদালতে দাখিল করবে পিবিআই। এরপর পাঁচলাইশ থানায় যে মামলা দায়ের হবে সে মামলায় বাবুল আক্তারকে গ্রেফতার দেখানোর আবেদন জানানো হতে পারে।

২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে চাঞ্চল্যকর এ হত্যা মামলাটি তদন্ত করছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পিবিআই চট্টগ্রাম মেট্রোর পুলিশ সুপার নাইমা সুলতানা বলেন, মিতু হত্যা মামলার বাদী বাবুল আক্তারকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পিবিআইতে ডাকা হয়েছিল। জিজ্ঞাসাবাদে স্ত্রী হত্যায় বাবুলের সংশ্লিষ্টতা পেয়েছে পিবিআই তদন্তকারী দল। তাই তাকে পিবিআই হেফাজতে রাখা  হয়েছে।

উল্লেখ্য ২০১৬ সালের ৫ জুন সকালে চট্টগ্রাম নগরীর নিজাম রোডে ছেলেকে স্কুলবাসে তুলে দিতে যাওয়ার পথে দুর্বৃত্তদের গুলি ও ছুরিকাঘাতে খুন হন মাহমুদা খানম মিতু। ওই সময় এ ঘটনা দেশজুড়ে ব্যাপক আলোচিত হয়। ঘটনার সময় মিতুর স্বামী পুলিশ সুপার বাবুল আক্তার অবস্থান করছিলেন ঢাকায়। ঘটনার পর চট্টগ্রামে ফিরে তৎকালীন পুলিশ সুপার ও মিতুর স্বামী বাবুল আক্তার পাঁচলাইশ থানায় অজ্ঞাতনামাদের আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

প্রথম দিকে মামলাটি ডিবি তদন্ত করলেও ২০২০ সাল থেকে মামলাটি তদন্ত করছে পিবিআই। বহুল আলোচিত এ মামলাটি বর্তমানে তদন্ত করছেন পিবিআই চট্টগ্রাম মেট্রোর পরিদর্শক সন্তোষ কুমার চাকমা।

চট্টগ্রাম/ইবিটাইম/আরএন

 

EuroBanglaTimes

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »