চরফ্যাসনে জোড়া খুন চট্টগ্রাম থেকে ভাড়াটে খুনি গ্রেফতার

চরফ্যাসন (ভোলা) : ভোলা চরফ্যাসনের আসলামপুরে জোড়া খুনের ঘটনায় ভাড়াটে খুনি শরীফ (২৮) কে গ্রেফতার করেছে চরফ্যাসন থানা পুলিশ। চট্টগ্রামের চক বাজার থানা পুলিশের সহায়তায়  দেবপাহাড় এলাকার চট্টোশরী রোডে অভিযান চালিয়ে সোমবার সন্ধ্যা ৮ টায় ভাড়াটে খুনি শরীফ কে গ্রেফতার করা হয়। শরীফ চরফ্যাসনের দক্ষিণ আইচা থানার করিমপাড়ার শাহ আলমের ছেলে এবং চট্টগ্রামের একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মাইক্রোবাস চালক বলে পুলিশ জানিয়েছে।

গত ৮ এপ্রিল সকালে আসলামপুরের সুন্দরী খাল সংলগ্ন জামাল ভূঁইয়ার পরিত্যক্ত বাগান বাড়ী থেকে মাথা বিহীন দুটি পোড়া মরদেহ উদ্ধার করে চরফ্যাসন থানা পুলিশ। এই খুনের ঘটনায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন চরফ্যাসন থানা পুলিশ।

ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করা আলামতের সূত্র ধরে গত ২১ এপ্রিল চরফ্যাসন পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডের জাফর ফরাজীর ছেলে বেল্লাল, ছোট ভাই কাশেম এবং শ্বশুর আবু মাঝিকে গ্রেফতার করে চরফ্যাসন থানা পুলিশ। গ্রেফতারকৃতদের দেয়া তথ্যানুযায়ী পুলিশ মাথা বিহীন মরদেহ দুটির পরিচয় নিশ্চিত হয়।

চরফ্যাসন পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডের মৃত উপেন্দ্র সরকারের বড় ছেলে তপন সরকার(৫৫), মেজ ছেলে দুলাল সরকার (৪০) পরিকল্পিত এই খুনের শিকার হন। দীর্ঘদিন ভারতে বসবাসকারী এই দুই ভাই স্বজনদের চোখ ফাঁকি দিয়ে চরফ্যাসনের পৈত্রিক সম্পত্তি বিক্রি করতে এসে খুনের শিকার হন।

জমির ক্রেতা বেল্লাল হোসেন জমির মূল্যবাবদ প্রাপ্য ১২ লাখ টাকা আত্মসাতের উদ্দেশ্যে আড়াই লাখ টাকায় খুনি ভাড়া করে ঘটান এই ভয়ংকর হত্যাকান্ড। খুনের মূল পরিকল্পনাকারী বেল্লালের দেয়া তথ্যানুযায়ী ২১ এপ্রিল বিকেলে প্রতিবেশী মহিবুল্লার বাড়ীর টয়লেট ট্যাংকি থেকে২ টি মাথা এবং ঘটনাস্থল সংলগ্ন সুন্দরী খাল থেকে খুনে ব্যবহৃত ধারালো ছেনী উদ্ধার করে চরফ্যাসন থানা পুলিশ।

বেল্লালের দেয়া তথ্যানুযায়ী মামলার তদন্ত কর্মকর্তা উপ – পরিদর্শক প্রবোধ দাস সঙ্গী ফোর্সসহ অভিযান চালিয়ে সোমবার রাতে চট্টগ্রাম থেকে ভাড়াটে খুনি শরীফকে গ্রেফতার করেন। তদন্ত কর্মকর্তা আরো জানান, খুনিরা একাধিক। অন্যান্য খুনিদের ও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

জামাল মোল্লা/ইবি টাইমস

EuroBanglaTimes

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »