অস্ট্রিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রী রুডল্ফ আনস্কোবারের পদত্যাগ

অস্ট্রিয়ার নতুন স্বাস্থ্যমন্ত্রী Dr. Wolfgang Mückstein

ইউরোপ ডেস্কঃ আজ সকালে অস্ট্রিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রী রুডল্ফ আনস্কোবার (গ্রিনস) পদত্যাগ করেছেন। অস্ট্রিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রীর পদ থেকে নিজেকে সরিয়ে নেওয়ার ঘোষণা দিয়ে তিনি এক টুইট বার্তায় বলেন,”আজ আমি ফেডারেল সরকার থেকে আমার বিদায়ের ঘোষণা করছি। করোনা মহামারীর সময় আপনাদের এমন একজন স্বাস্থ্যমন্ত্রী দরকার যা ১০০% ফিট। যা বর্তমানে আমার মাঝে নেই। আমি পরের কয়েক দিনের মধ্যে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দ্বায়িত্ব আমার উত্তরসূরির হাতে তুলে দেব। আমি বর্তমানে অসুস্থ অবস্থায় আছি এবং আগামী কয়েক সপ্তাহের মধ্যে আবার সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে উঠব। আমি সমস্ত সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম থেকেও বিরতি নেব, “শুভকামনা” ।

এখানে উল্লেখ্য যে,গত প্রায় দুই সপ্তাহ পূর্বে অজ্ঞাত একজন স্বাস্থ্যমন্ত্রী রুডল্ফ আনস্কোবারকে হত্যার হুমকি দেওয়ার পর থেকে তার নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরও জোরদার করা হয়েছিল। সংবাদ সংস্থা এপিএ স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের উদ্ধৃতি দিয়ে জানিয়েছেন যে,আনস্কোবার উচ্চ রক্তচাপ ও ডায়াবেটিক রোগেও ভুগছেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী পদত্যাগের সিদ্ধান্তের উপর উপ-প্রধানমন্ত্রী ভার্নার কোগলার (গ্রিনস) এক জরুরী সাংবাদিক সম্মেলনে ভিয়েনার সাধারণ অনুশীলনকারী ডা. ভল্ফগ্যাং ম্যাকস্টাইনকে (গ্রিনস) নতুন স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসাবে রুডল্ফ আনস্কোবারের উত্তরসূরি ঘোষণা করেন।

নতুন স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসাবে নাম ঘোষণার পর ভিয়েনা সিটির প্রাণ কেন্দ্র Mariahilfer strasse তে অনুশীলনরত মেডিসিনের চিকিৎসক Dr. Wolfgang Mückstein তার প্রথম প্রতিক্রিয়ায় এক সাংবাদিক সম্মেলনে বলেন,”আমি আপনাদের সকলের কাছ থেকে এই করোনা মহামারীটি থেকে উত্তোরণের জন্য যথাসাধ্যভাবে সর্বাত্মক সহযোগিতা কামনা করছি।”

তিনি বলেন আরও বলেন”,দেশের ও জনগণের স্বার্থে তিনি প্রয়োজনে।অনেক অপ্রিয় সিদ্ধান্ত নিতেও পিছ পা হবেন না।”

স্বাস্থ্যমন্ত্রী রুডল্ফ আনস্কোবার (গ্রিনস) এর পদত্যাগের ব্যাপারে সরকার প্রধান চ্যান্সেলর (প্রধানমন্ত্রী) সেবাস্তিয়ান কুর্জ (ÖVP) সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এক বার্তায় বলেন, আজ সকালে রুডল্ফ আনস্কোবার আমাকে ফোন করে অস্ট্রিয়ার স্বাস্থ্য ও সামাজিক বিষয়ক মন্ত্রী থেকে তার পদত্যাগ সম্পর্কে অবহিত করেছেন। তাঁর সিদ্ধান্তটি একান্তই ব্যক্তিগত একটি বিষয়, যা আমরা সকলেই অবশ্যই সম্মান করি।

ÖVP-Greens জোটের দায়িত্ব নেওয়ার পর পরই তিনি করোনার মহামারীর সমস্ত সরকারী কাজের তদারকি করেছেন। তিনি করোনা মহামারীর ব্যবস্থাপনায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসাবে কেন্দ্রীয় ভূমিকা পালন করেছেন।

রুডল্ফ আনস্কোবার করোনা মহামারীর শুরু থেকেই অত্যন্ত  দুর্দান্ত দায়িত্ব নিয়ে এই কাজটি সম্পাদন করেছেন। গত ১৬ মাস ধরে তিনি আমাদের দেশের জন্য আত্মত্যাগ করেছেন এবং স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসাবে, তার সমস্ত শক্তি করোনার মহামারীকে লড়াই করার জন্য ব্যয় করে গেছেন।

সদ্য পদত্যাগকারী স্বাস্থ্যমন্ত্রী রুডল্ফ আনস্কোবারের সাথে সরকার প্রধান চ্যান্সেলর সেবাস্তিয়ান কুর্জ তার স্মৃতি চারণ করে বলেন,তার সাথে অনেক ব্যক্তিগত কথোপকথন, সারা রাত বৈঠক এবং তার সাথে মাঝে মাঝে কঠিন আলোচনা থেকে, আমি জানি যে তিনি স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসাবে দায়িত্ব পালন করার সময়  কতটা প্রতিজ্ঞাবদ্ধ ছিলেন। তাঁর পদত্যাগ থেকে বোঝা যায় যে মহামারীটি জনসংখ্যার প্রতিটি মানুষের জন্যই বোঝা নয়, এমন একটি রাজনৈতিকভাবে দায়িত্বশীল ব্যক্তির জন্যও বোঝা, যে দিনরাত দায়িত্ব যথাযথ পালন করেও ছেড়ে চলে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিতে হয়।

আমি সরকার প্রধান হিসাবে ফেডারাল সরকারের পক্ষ থেকে এবং আমার ব্যক্তিগতভাবে পক্ষ থেকেও তাকে তার কাজের জন্য ধন্যবাদ জানাই। তবে সর্বোপরি আমি তাঁর সুস্বাস্থ্য কামনা করি এবং আশা করছি তিনি অতি দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠুক।

অস্ট্রিয়ার জাতীয় সংসদের প্রধান বিরোধীদল সোস্যালিষ্ট পার্টি অস্ট্রিয়া (SPÖ) প্রধান এবং সাবেক অস্ট্রিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা.পামেলা রেন্ডি ভাগনার,   রুডল্ফ আনস্কোবারের পদত্যাগের ব্যপারে প্রাথমিক প্রতিক্রিয়ায় বলেন,তার ব্যক্তিগত সিদ্ধান্তকে আমরা সন্মান করি।

তিনি আরও বলেন,তিনি স্বাস্থ্যমন্ত্রীর দায়িত্বপ্রাপ্ত হওয়ার পরপরই দেশে করোনা মহামারীর প্রাদুর্ভাব শুরু হয়। আমার মতে করোনা মহামারীতে তিনি দেশের জন্য তার সর্বাত্মক শ্রম দিয়েছেন। আমি তাকে তার কাজের জন্য আমার নিজের এবং দলের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি।

তিনি আরও যোগ করে বলেন,আমি তার দ্রুত সুস্থতা কামনা করছি।

কবির আহমেদ /ইবি টাইমস

EuroBanglaTimes

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »