অস্ট্রিয়ার Tirol রাজ্যে দক্ষিণ আফ্রিকার মিউটেশন ভাইরাস সনাক্ত !

ইউরোপ ডেস্কঃ অস্ট্রিয়ার Tirol রাজ্যের জনপ্রিয় দৈনিক পত্রিকা “Tiroler Tages Zeitung” জানিয়েছেন এই রাজ্যের Kitzbühel জেলার আল্পস পর্বতাঞ্চলের পাদদেশের উপত্যকা Zillertal এ দক্ষিণ আফ্রিকার মিউটেশন অর্থাৎ রূপান্তরিত ভাইরাস সনাক্ত হয়েছে। পত্রিকাটি জানায়,PCR টেস্টের মাধ্যমে ৫ জনের শরীরে মিউটেশন ভাইরাস B.1.351এর উপস্থিতি নিশ্চিত সনাক্ত হয়েছে এবং আরও ২১ জনের শরীরে এই ভাইরাস আছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। তাদের PCR টেস্টের রিপোর্ট হাতে পেতে আরও দুই একদিন সময় লাগতে পারে। বর্তমানে তারা প্রশাসনের নজরধারীতে আইসোলেশনে আছেন।

এই রূপান্তরিত বা করোনার মিউটেশন ভাইরাস B.1.351 গত ডিসেম্বর মাসে দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রথম সনাক্ত হয়েছিল। বর্তমানে এই মিউটেশন ভাইরাসের জন্য দক্ষিণ আফ্রিকার সাথে অস্ট্রিয়ার বিমান চলাচল স্থগিত রয়েছে। অস্ট্রিয়া অবশ্য অনেক  দেরীতে বিমান চলাচল স্থগিত করেন। Zillertal উপত্যকা অস্ট্রিয়ার অন্যতম একটি পর্যটন কেন্দ্র। আল্পস অস্ট্রিয়ার পাদদেশের এই উপত্যকাটি শীত ও গ্রীষ্ম উভয় সিজনেই পর্যটকে ভরপুর থাকে। শীতকালীন স্কি খেলার জন্য এই উপত্যকা পৃথিবীর অন্যতম একটি স্থান। এখানে কয়েকটি স্কি ফিল্ড পৃথিবী বিখ্যাত।

অস্ট্রিয়ান সরকার লকডাউনের ভিতরেই বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ উপেক্ষা করে কিছু শর্ত সাপেক্ষে আল্পস পর্বতাঞ্চলের স্কি ফিল্ডগুলি খুলে দিয়েছিল। কিন্ত অভিযোগ উঠেছিল এখানে যথাযথ বিধিনিষেধ মানা হয় নি। পরবর্তীতে সরকার বৃটেনের B.1.1.7 মিউটেশন ভাইরাসের সংক্রমণ সনাক্ত হওয়ার পর কিছুটা নড়েচড়ে বসেন। ধারণা করা হচ্ছে পর্যটকদের দ্বারাই দক্ষিণ আফ্রিকার এই মিউটেশন ভাইরাস এই অঞ্চলে ছড়িয়েছে।

স্থানীয় বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন এই অঞ্চলে দক্ষিণ আফ্রিকার মিউটেশন ভাইরাস B.1.351 আরও ব্যাপক ছড়িয়েছে। তাই আগামীকাল রবিবার এই উপত্যকার পার্শ্ববর্তী জেলা Schwaz এর সকল বাসিন্দাদের ফ্রি করোনার PCR টেস্টের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। সোমবার অস্ট্রিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রনালয়ের সংক্রমণ রোগ বিশেষজ্ঞরা উপদ্রুত এলাকা পরিদর্শনে এসে পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন বলে জানা গেছে। আগামী ২৫ জানুয়ারী থেকে অস্ট্রিয়ায় করোনার বিধিনিষেধে কিছুটা কঠোরতা আরোপ করা হয়েছে। এর মধ্যে অন্যতম হ’ল সামাজিক দূরত্ব ২ মিটার দূরত্ব মেনে চলতে হবে এবং গণপরিবহন ও সুপারমার্কেটে FFP2 মাস্ক পড়া বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার থেকে অস্ট্রিয়ার বিভিন্ন দোকানে এই মাস্ক প্রতি পিস ৫৯ সেন্ট করে বিক্রয় হচ্ছে। অনেক দোকানে মাস্ক খুব অল্প সময়ের মধ্যেই শেষ হয়ে যাচ্ছে। আজ ভিয়েনায় সুপারমার্কেট সংস্থা REWE গ্রুপ Billa, Merkur,Bipa,Penny এবং ADEG ও Spar গ্রুপ জানিয়েছেন যে,তারা ২৫ জানুয়ারী থেকে তাদের সুপারমার্কেটে তাদের গ্রাহকদের কেনাকাটার সময় বিনামূল্যে এই FFP2 মাস্ক সরবরাহ করবে।

আরেক খবরে বলা হয়েছে,অস্ট্রিয়ার করোনার সংক্রমণের বিস্তার আশানুরূপ হ্রাস না পাওয়ায় সরকার কিছুটা হতাশ হয়েছে বলে সংবাদ মাধ্যমে বলা হয়েছে। আরও বলা হয়েছে সরকারের নীতি নির্ধারকরা আগামী সোমবার বিভিন্ন রাজ্যের গভর্নর,সংক্রমণ রোগ বিশেষজ্ঞ এবং সামাজিক অংশীদারদের সাথে লকডাউন বর্ধিত সহ সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে পুন:রায় বৈঠক করবেন।

এদিকে আজ অস্ট্রিয়ায় নতুন করে করোনায় সংক্রমিত সনাক্ত হয়েছেন ১,৬২৬ জন এবং মৃত্যুবরণ করেছেন ৫৯ জন। আজ অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায় করোনায় সংক্রমিত সনাক্ত হয়েছেন ২৮২ জন। অন্যান্য রাজ্যের মধ্যে NÖ রাজ্যে ২৯৭ জন,OÖ রাজ্যে ২৪৩ জন, Steiermark রাজ্যে ২৩৩ জন Salzburg রাজ্যে ১৮৬ জন,Kärnten রাজ্যে ১৩৯ জন,Tirol রাজ্যে ১১২ জন, Voralberg রাজ্যে ৮৪ জন এবং Burgenland রাজ্যে ৫০ জন নতুন করে সংক্রমিত সনাক্ত হয়েছেন।

অস্ট্রিয়ায় এই পর্যন্ত করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪,০৩,৫১২ জন এবং মৃত্যুবরণ করেছেন মোট ৭,৩৮৯ জন। করোনার থেকে এই পর্যন্ত আরোগ্য লাভ করেছেন মোট ৩,৮০,২৪৮ জন। বর্তমানে করোনার সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ১৫,৮৭৫ জন। এর মধ্যে আইসিইউতে আছেন ৩২৩ জন এবং হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন ১,৮৪৮ জন। বাকীরা নিজ নিজ বাড়িতে আইসোলেশনে আছেন।

কবির আহমেদ /ইবি টাইমস

EuroBanglaTimes

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »