ক্রোয়েশিয়ায় ৬,৪ মাত্রার ভয়াবহ ভূমিকম্প

                                                                   সমগ্র অস্ট্রিয়ায় কম্পন অনুভূত !

আন্তর্জাতিক ডেস্ক থেকে,কবির আহমেদঃ ক্রোয়েশিয়ায় বেসরকারী খবরে এই পর্যন্ত ১২ বৎসরের ১ জন কিশোরসহ ৭ জন নিহত এবং শতাধিক  আহত বলে জানা গেছে। মঙ্গলবার ২৯ ডিসেম্বর ক্রোয়েশিয়ার স্থানীয় সময় ১২ টার দিকে একটি তীব্র ভূমিকম্পে সমগ্র ক্রোয়েশিয়া কেঁপে উঠল। ভূমিকম্পের তীব্রতায় রাজধানী জাগরেবের অসংখ্য  বাড়িঘর ভেঙে পড়েছে। ভূমিকম্পের কেন্দ্রস্থল রাজধানী জাগরেব থেকে মাত্র ৪৫ কিলোমিটার দূরবর্তী পেট্রিনজা শহরের নিকটে। এই ভূমিকম্পের কম্পন অস্ট্রিয়ার বিভিন্ন জায়গায় অনুভত হয়েছে বলে অস্ট্রিয়ার বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে বলা হয়েছে এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেকেই ভূমিকম্পের সময় বাড়িঘর কেপেঁ উঠার ভিডিও সহ পোস্ট দিয়েছেন।

ইউরোপীয়-ভূমধ্যসাগরীয় সিসমোলজিকাল সেন্টার (ইএমএসসি) এই ভূমিকম্পের মাত্রা রিক্টার স্কেলে ৬,৪ রেকর্ড হয়েছে বলে জানায়। এর কেন্দ্রস্থল পেট্রিনজা শহরের কাছে বলে জানা গেছে। সংবাদ সংস্থা আল জাজিরা জানিয়েছেন ভূমিকম্পের তীব্রতা পাশাপাশি প্রতিবেশী দেশ সার্বিয়া, বসনিয়া ও হার্জেগোভিনা এবং অস্ট্রিয়ায়ও অনুভূত হয়েছিল।

ক্রোয়েশিয়ার স্থানীয় সংবাদ মাধ্যম জানিয়েছেন, পেট্রিনজা শহরের বেশ কয়েকটি বাড়িঘর ভেঙে পড়েছে। সেখানকার আঞ্চলিক সম্প্রচার কেন্দ্র N1 জানিয়েছে,সেখানে ধ্বংসস্তূপ ভিতর থেকে মানুষের চিৎকার শোনা গেছে। ধ্বংসস্তূপের ভিতর থেকে ১২ বৎসর বয়সী এক কিশোরী এবং  আরও ৬ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।  ক্রোয়েশিয়ান সেনাবাহিনী সহ সমস্ত উদ্ধারকারী দল তাদের উদ্ধার কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন।

সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, পুলিশ স্থানীয় বাসিন্দাদের ক্ষতিগ্রস্থ ভবন ছেড়ে যেতে বলেছেন। পেট্রিনজা শহরে জরুরী অবস্থা ঘোষণা করা হয়েছে এবং সমস্ত জরুরী পরিষেবা ইউনিটকে উদ্ধার কাজে অংশগ্রহণ করতে দেখা গেছে। ভূমিকম্পের পর পর ক্রোয়েশিয়ার বিভিন্ন অঞ্চলে বিদ্যুৎ ও টেলিফোন লাইন বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। ভূমিকম্পের পর পরই অস্ট্রিয়ার পক্ষ থেকে ক্রোয়েশিয়াকে সাহায্যের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। মঙ্গলবার ক্রোয়েশিয়ার ভয়াবহ ভূমিকম্পের পরে প্রতিরক্ষা মন্ত্রী ক্লাউডিয়া ট্যানার এবং পররাষ্ট্রমন্ত্রী আলেকজান্ডার শ্যাচলেনবার্গ তৎক্ষণাৎ ক্ষতিগ্রস্থ অঞ্চলের জন্য অস্ট্রিয়ার সাহায্যের প্রস্তাব দিয়েছেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী আলেকজান্ডার শ্যাচলেনবার্গ বলেন, “আমরা এই কঠিন সময়ে আমাদের ক্রোয়েশিয়ান বন্ধুদের পাশে আছি এবং ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্থদের আমরা সাহায্য করতে প্রস্তুত।”

পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, ভূমিকম্পে রাজধানী জাগরেবে অস্ট্রিয়ান দূতাবাস সামান্য ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে তবে কর্মচারীরা সবাই সুস্থ আছেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী শ্যাচলেনবার্গ ভূমিকম্পের পর পরই ক্রোয়েশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী গর্ডান গ্র্লিক রেডম্যানের সাথে টেলিফোন করে কথা বলেন এবং সব ধরনের  অস্ট্রিয়ার সাহায্যের প্রস্তাব দেন।

EuroBanglaTimes

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »